Foto

ব্যালন ডি অর না পাওয়াটা কেলেঙ্কারি বলছেন বুফন


নেইমারের হাতে ব্যালন ডি’অর ট্রফি না ওঠাটাকে কেলেঙ্কারি বলেছেন ইতালির হয়ে বিশ্বকাপজয়ী গোলরক্ষক বুফন।


নেইমার কি ক্লাব সতীর্থ জিয়ানলুইজি বুফনের কথাটি শুনেছেন? শুনে থাকলে কিছুটা কমে আসতে পারে তাঁর ব্যালন ডি’অর না পাওয়ার কষ্ট। কী লেছেন বুফন? নেইমারের হাতে ব্যালন ডি’অর ট্রফি না ওঠাটাকে রীতিমতো কেলেঙ্কারি বলেছেন ইতালির হয়ে বিশ্বকাপজয়ী গোলরক্ষক।

জুভেন্টাসের সঙ্গে ১৭ বছরের সম্পর্ক ছিন্ন করে চলতি বছর জুলাইয়ে প্যারিস সেইন্ট জার্মেইতে যোগ দেন বুফন। প্যারিসে এসে সতীর্থ হিসেবে পান নেইমার, কিলিয়ান এমবাপ্পেদের মতো তরুণ ও উদীয়মান তারকাদের। বর্তমান সময়ে নেইমার, এমবাপ্পেদের ক্যারিশমা বুফনেরই ভালো বোঝার কথা। গোলপোস্টে দাঁড়িয়ে খেলার ধরন বিভিন্ন আঙ্গিকে দেখা হয় তাঁরই। এই দুই তরুণ ফরোয়ার্ডকে নিয়ে তাই তাঁর জন্মেছে অন্য রকম মুগ্ধতা। এখন পর্যন্ত নেইমারের হাতে ব্যালন ডি’অর ট্রফি না ওঠাকেই কেলেঙ্কারি বলছেন ৪০ বছর বয়সী ইতালিয়ান গোলরক্ষক, ‘আমি নেইমারকে বলি যে তোমার হাতে ব্যালন ডি’অর না ওঠাটা কেলেঙ্কারির মতো। যাতে সে আরও বেশি রাগান্বিত হেয়ে ওঠে।’ নেইমার ও এমবাপ্পে পরবর্তী ১০ বছর ফুটবলে রাজত্ব করবেন বলেও মনে করেন বুফন।

ভবিষ্যতে এই ট্রফিটা যে জিততে পারেন নেইমার, বুফন ছাড়া অনেক বড় তারকাই ভবিষ্যদ্বাণী করেছেন। সে তালিকায় আছেন ব্রাজিল ফুটবল ইতিহাসের সেরা স্ট্রাইকার রোনালদো দ্য ফোনেমেনন, রোনালদিনহোসহ আরও অনেকে। কয়েক মাস আগে স্পেন ও বার্সেলোনার সাবেক তারকা জাবি বলেছিলেন, ‘নেইমারের প্রতি আমার শ্রদ্ধা অপরিসীম। ও অবিশ্বাস্য ফুটবলার! মেসি আর রোনালদোর রাজত্ব যখন শেষ হবে, যদিও এই বয়সেও (৩৩) রোনালদোরই এখনো অনেক কিছু দেওয়ার বাকি; এরপর নেইমারই হবে পরবর্তী ব্যালন ডি’অর বিজয়ী। আমি এতে নিশ্চিত। শুধু খেলোয়াড় হিসেবে নয়, মানুষ নেইমারের প্রতিও আমার অনেক শ্রদ্ধা। ও সহজাত এক নেতা। মাঠে, ড্রেসিংরুমেও। ও এমন এক খেলোয়াড়, যে সব সময় বল চায়, সব সময় কিছু করে দেখাতে চায়।

একসময় ইউরোপের বাইরের ফুটবলাররা জিততে পারতেন না ব্যালন ডি’অর ট্রফি। ১৯৯৫ সালে জর্জ উইয়্যাহ প্রথম অ-ইউরোপীয় খেলোয়াড় হিসেবে পুরস্কারটি জেতেন। ফ্রেঞ্চ ফুটবলই স্বীকৃতি দিয়েছে, ১৯৫৮-এর শুরু থেকে ১৯৯৪ সাল পর্যন্ত ধরলে ব্রাজিলের খেলোয়াড়েরা এই ট্রফি জিততেন ৯ বার। নিয়ম বদলের পর ১৯৯৫ সাল থেকেও এই পুরস্কারে দাপট ছিল ব্রাজিলের। রোনালদো, রিভালদো, রোনালদিনহো, কাকারা মিলে এই পুরস্কার জিতেছেন পাঁচবার। কাকাই সর্বশেষ। এরপর থেকে গত ১০ বছরে সমান ভাগে ভাগাভাগি করে নিয়েছেন ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো, নয় তো মেসি। আর এবার সে রাজত্ব কেড়ে নিয়েছেন ক্রোয়েশিয়ার অধিনায়ক লুকা মদরিচ।

Facebook Comments

" ফুটবল সংবাদ " ক্যাটাগরীতে আরো সংবাদ