Foto

এক টাকাও খরচ করতে পারেনি পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ও পিএসসি


চলতি ২০১৮-১৯ অর্থবছরের প্রথম পাঁচ মাসে (জুলাই-নভেম্বর) ১১টি মন্ত্রণালয় ও বিভাগ বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচির বরাদ্দের মাত্র ১০ শতাংশ অর্থও খরচ করতে পারেনি। অবশ্য গতবার একই সময়ে ১৭টি মন্ত্রণালয় ও বিভাগ তাদের বরাদ্দের ১০ শতাংশ টাকাও খরচ করতে পারেনি। সেই তুলনায় এবার অবস্থা একটু ভালো।


পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের বাস্তবায়ন, পরিবীক্ষণ ও মূল্যায়ন বিভাগের (আইএমইডি) তথ্য থেকে এ চিত্র পাওয়া গেছে। এবার আসি এডিপি বাস্তবায়নে সবচেয়ে খারাপ পারফরম্যান্স কোন মন্ত্রণালয় বা বিভাগের। এই তালিকায় শীর্ষে আছে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ও সরকারি কর্মকমিশন। কোনো টাকাই খরচ করতে পারেনি তারা।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের পাঁচটি প্রকল্পে ১২৩ কোটি টাকা বরাদ্দ আছে। তবে এখন পর্যন্ত এক টাকাও খরচ করতে পারেননি এই মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা। অন্যদিকে সরকারি কর্মকমিশনের একটি প্রকল্পে ৩০ কোটি টাকা বরাদ্দ থাকলেও কোনো টাকা খরচ হয়নি।

আইএমইডি সূত্রে জানা গেছে, বরাদ্দের ১০ শতাংশের কম টাকা খরচ করেছে, এমন অন্য মন্ত্রণালয় ও বিভাগগুলো হলো রেলপথ মন্ত্রণালয়, পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়, ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়, বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয়, তথ্য মন্ত্রণালয়, আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগ, অভ্যন্তরীণ সম্পদ বিভাগ, জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় এবং দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

আইএমইডির তথ্য বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে, এবারের এডিপিতে ১ হাজার ৫০৭টি প্রকল্প আছে। এর মধ্যে ১৯৪টি প্রকল্প বাস্তবায়ন করছে ওই ১১টি মন্ত্রণালয় ও বিভাগ।

অথচ চলতি অর্থবছরের শুরুতেই পরিকল্পনামন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল বিভিন্ন মন্ত্রণালয় ও বিভাগের সচিবদের সঙ্গে একাধিক সভা করে নির্দিষ্ট সময়ে প্রকল্প বাস্তবায়নের তাগিদ দিয়েছেন। নির্বাচনের বছরে যেন কাজ আটকে না থাকে, সেই নির্দেশনাও দিয়েছেন তিনি। এমনকি কোনো প্রকল্পে টাকা খরচ করতে না পারলে বরাদ্দের টাকা যেন অন্য প্রকল্পে খরচ করা হয়, এমনও নির্দেশও দেওয়া হয়েছে। গত রোববার সংবাদ সম্মেলনেও পরিকল্পনামন্ত্রী এসব কথা বলেন।

বছরের শুরু থেকে এডিপি বাস্তবায়নে সরকারের পক্ষ থেকে নানা উদ্যোগ নেওয়া হলেও মাঠের অবস্থায় তেমন একটা পরিবর্তন হয়নি। ফলে এডিপির বাস্তবায়ন গতানুগতিকভাবেই চলছে। আইএমইডির প্রতিবেদন অনুযায়ী চলতি অর্থবছরের প্রথম পাঁচ মাসে (জুলাই-নভেম্বর) সার্বিকভাবে এডিপির ২০ দশমিক ১৫ শতাংশ বাস্তবায়িত হয়েছে, যা গত পাঁচ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ।

Facebook Comments

" জাতীয় খবর " ক্যাটাগরীতে আরো সংবাদ